এদিকে বি’য়ের দাবিতে গতকাল শনিবার (৩০ নভেম্বর) সদর উপজে’লার প’শ্চিম সেকদি গ্রামের প্রে’মিক শেখ মাহবুব আলমের বাড়িতে অ’নশন করেন ওই ত’রুণী। শেখ মাহবুব ওই গ্রা’মের সহিদ উল্যাহ’র ছেলে।




ফে’সবুকে প্রে’ম করেই শা’রীরিক সম্প’র্কের পরই উ’ড়াল দিল প্রবাসী প্রেমিক!
সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে প্রেমের স’ম্পর্ক গড়ে বি’য়ের প্রলো’ভনে শা’রীরিক সম্প’র্কের পর প্রে’মিকাকে ফেলে পা’লিয়েছে এক প্র’বাসী।




এ সময় ওই ত’রুণী বলেন, গত এক বছর পূ’র্বে মাহাবুব আলমের স’ঙ্গে তার ফেসবুকে পরিচয় হয়। এরপর তাদের মধ্যে প্রেমের সম্প’র্ক গড়ে ওঠে। পরে বি’য়ের প্র”লোভনে শেখ মাহবুব তার সঙ্গে একা’ধিকবার শা’রীরিক সম্প’র্কে জ’ড়ান।




এদিকে ওই ত’রুণী তাকে বিয়ে করতে চাইলে মাহবুব অ’স্বীকৃতি জানান। পরে গত ১৫ নভেম্বর ওই ত’রুণী থানায় একটি মাম’লা দা’য়ের করেন। এরপর মাহবুবের বাড়িতে এসে অ’নশন করেছেন তিনি।




চাঁ’দপুর মডেল থানার উপ-প’রিদর্শক (এসআই) পলা’শ বড়ুয়া জানান, ওই ত’রুণীর মা’মলাটি তদ’ন্তাধীন রয়েছে। দুই পক্ষ বর্তমানে থা’নায় আছে। আলোচনা করে প্র’য়োজনীয় ব্য’বস্থা নেয়া হবে।




অভিযু’ক্ত মাহবুবের বাবা সহিদ উ’ল্যাহ অভিযো’গ করে বলেন, মেয়েটি বাড়িতে ঢুকে আমাদের লা’ঞ্ছিত করেছে। ঘরের মা’লামাল ভা’ঙচুর করেছে। পরে আমি থানায় খবর দিয়েছি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here